বাংলার ভাস্কর্যে নারী (Women in Bengal Terracotta)

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

16463460_987516598015491_2526189299107982085_o

দিন বদলায় , সময় বদলায় , ক্ষমতার হাত বদল হয় বাংলায় – আর দিন বদলের এই উপাখ্যান রয়ে যায় পোড়া মাটির ভাস্কর্যে । শিল্পীর কল্পনায় – গ্রাম বাংলার খড়ের চালার সাথে মিশে যায় খিলান (Arch) । বর্ধমানের ছায়া ঘেরা প্রত্যন্ত গ্রামে , এক বাতায়নবর্তিনীর নিঃস্বঙ্গতা মূর্ত হয়ে ওঠে পোড়া মাটির ভাস্কর্যে ।

আবার দিন বদলায় । গ্রামে গ্রামে সমৃদ্ধ জমিদার শ্রেণির উদ্ভব হয় । গ্রীষ্মের দুপুরে একাকিনী জমিদার গৃহিণীর সময় কাটে বিরাট জমিদার বাড়ির অলিন্দের এক কোনায় । স্নিগ্ধ মুহূর্তটা ছাপ রেখে যায় প্রতাপেশ্বর দেউলের এক ভাস্করের মনে ।

আবারও দিন বদলায় । বনিকের মানদণ্ড পরিণত হয় রাজদণ্ডে । সুদূর ইউরোপ থেকে মহাসাগর পার করে আসা এক ব্রিটিশ রমণী , অবাক চোখে দেখে গ্রাম বাংলার রুপ ! জানলার খড়খড়ির (Venetian Window Blinds) ফাঁক দিয়ে সুন্দরী ব্রিটিশ কন্যার রুপে মুগ্ধ হয় বাংলার এক ভাস্কর । … এভাবেই তিন কন্যা বেঁচে থাকে গ্রাম বাংলার পোড়ামাটির ভাস্কর্যে … দিন বদলের মূর্ত প্রতীক হয়ে ।

পোড়ামাটির মন্দিরগাত্রে রমণীদের এই বিশেষ ভাস্কর্যগুলোকে ‘আলসকন্যা’ বলা হয় । 

ছবি – Shyamal Chatterji

16251584_10155015373861450_8795206775516915480_o.jpg

নীচের ছবিগুলো একটু খেয়াল করলেই দেখতে পাবেন , একই বিষয়কে কিভাবে বিভিন্ন জায়গার পোড়ামাটির ভাস্কররা বিভিন্ন আঙ্গিকে তুলে ধরেছেন।

সময়ের সাথে সাথে বদলেছে নারীর পোশাক ,পরিচ্ছেদ , অলঙ্কার ও অভ্যাস । সেই বিবর্তন ছাপ ফেলে গেছে ভাস্কর্যে । ষোড়শ শতাব্দীতে যেভাবে গোপিনীদের সৃষ্টি করেছেন ভাস্কর , সেই একই গোপিনীদের সম্পূর্ণ ভিন্ন ভাবে ফুটিয়ে তুলেছেন পরবর্তী প্রজন্মের শিল্পীরা । শাড়ি পরার ধরন , গলার মালা , কানে মাকড়ি , কোমরের কটিবন্ধ এবং দাঁড়ানোর ভঙ্গিমা ইতাদি বদলে গেছে একশ বছরের মধ্যে। ইউরোপীয়ান আর্টের অনুকরণে বদলে গেছে নারী দেহের পরিমাপ ও ভাস্কর্যের গভীরতা । শিল্পীর দক্ষতার উপর নির্ভর করে স্থানভেদে বদলেছে অলঙ্করন ।

এই ব্লগেই চৈতন্যের হত্যা সম্পর্কিত পোষ্টটায় আগেই উল্লেখ করেছি যে কিভাবে চৈতন্য আন্দোলনের পরবর্তীকালে সাড়া বাংলা জুড়েই মন্দির নির্মাণের চল শুরু হয় । সপ্তদশ শতকের শুরু থেকে এই যে মন্দির নির্মাণের জোয়ার আসে তাতে কৃষ্ণের জীবনকাহিনী বা কৃষ্ণলীলা ফুটে উঠেছে বিভিন্ন জায়গায়। তাই কৃষ্ণের বাল্যলীলায় কখনো যশোদা , কখনো রাধা আবার কখনো গোপিনী রুপে নারীরা   চিত্রিত হয়েছে বাংলার মন্দিরে । পোড়ামাটির ভাস্কর্যে নারী কখনো দেবী , কখনো মানবী । কৃষ্ণের সাথে রাধা , রাজ দরবারে রামের পাশে সীতা , দেবী হিসেবে কাত্যায়নী , দুর্গা , কালী , মনসা ইত্যাদি নানান শক্তি রুপে নারীর প্রকাশ ঘটেছে ।

বাতায়নবর্তিনী , ভারবাহীকা , স্তন্যদায়িনী , শালভঞ্জিকা ,হাঁটু মুড়ে শিব পুজায় মগ্ন , যোগিনীমূর্তি , দশমহাবিদ্যা , অষ্টনায়িকা, সপ্তমাতৃকা, বস্ত্রহরন ,নবনারীকুঞ্জর , সিংহবাহিনী , ছিন্নমস্তা ইত্যাদি বিভিন্ন ভাস্কর্যের সাথে সাথে নারী ও পুরুষের মৈথুনমূর্তিও বিরল নয় বাংলায় । প্রথম দিকের পোড়ামাটির মন্দিরে দেখা যায় – নারী যখন মানবী তখন তার দেহের যে অনুপাত মেনে ভাস্কর্যের নির্মাণ হয়েছে , নারী যখন দেবী তখন তার অনুপাত ভিন্ন ।

তবে সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য বিষয়টা হল কৃষ্ণলীলা , রামায়ন বা শক্তি আরাধনার প্রসঙ্গ ছাড়াও সামাজিক প্যানেলের মধ্যেও নারীদের অবস্থান বিরল নয় । বিশেষ করে অষ্টাদশ , উনবিংশ শতাব্দীর মন্দিরগুলোতে অনেকসময় সাহেবদের সাথে সাথে মেমসাহেবদের ভাস্কর্যও দেখা যায়।

বাংলার মন্দিরভাস্কর্যে নারী , তাদের ভূমিকা , তাদের পোশাক/পরিচ্ছেদ/অলঙ্করন ইত্যদি বিষয়গুলো অত্যন্ত অবহেলিত এক অধ্যয় এবং এ নিয়ে বহু গবেষণার সুযোগ রয়েছে। এখানে শুধুমাত্র এর প্রাথমিক আলোচনাটুকু করা হল।

বাঙালী নারী শাড়ি পরছে ষোড়শ শতকের পরে । আগে দু খণ্ড কাপড় থাকত। এক খণ্ড নিচে। আরেক খণ্ড ওপরে। কেউ কেউ কাঁচুলি পরত। নিচের অংশকে ফেরানি বলত গ্রামাঞ্চলে। ধনীরা বিভিন্ন রকম পরত। মেখলা, কোমর বন্ধ, নিবীবন্ধ, গল বন্ধ এই সব। সেমিজ এসেছে অষ্টাদশ শতকে। উনিশ শতকে ব্লাউজ। কাঁচুলি খুব প্রাচীন পোশাক। তার নির্মাণ প্রণালী নিয়ে আস্ত এক খানা বই হতে পারে।  দেহের অনুপাতে মানুষের ক্ষেত্রে এদেশে মুন্ডু আর ধর ১ ভাগ আর ৭ ভাগ করা হত। কোমরের নিচে ৪, দেহ ৩ ভাগ। দেবতাদের ক্ষেত্রে বিভিন্ন রকম হত। ভরত সে সব বলেছেন। কিন্নর, রাক্ষস, বানর, দৈত্য, দানব সকলেরই গঠনের নির্দিষ্ট মাপ ছিল। শারীরিক নৃতত্ত্বের অনেক তত্ত্ব এতে খুঁজে পাওয়া যাবে।Rudro Dab’এর মন্তব্য ।

Women Krishna Leela Bengal Terracotta Architecture
কৃষ্ণের বস্ত্রহরন দৃশ্য (সিউরি , বীরভূম)
Kali in Bengal Terracotta Temple Architecture
কালী মূর্তি (আটপুর , ইটন্ডা , তেহট্ট)
Durga in Bengal Terracotta Temple Architecture
দুর্গা (আটপুর , ইটন্ডা , সিউরি)
Ram Sita Women in Bengal Terracotta Temple Architecture
রাজসভায় রাম ও সীতা
Women In Temple Sculpture Terracotta Bengal Architecture
ভারবাহিকা/নর্তকী (বাঁশবেরিয়া , কেন্দুর )
Sex Couple Women in Bengal Terracotta Temple Architecture
মৈথুন মূর্তি/ যুগল মূর্তি (কেন্দুর , তেহট্ট)
Salbhonjika Shalbhanjika Women in Bengal Terracotta Temple Architecture
শালভঞ্জিকা মূর্তি (কেন্দুর , তেহট্ট)
Shiva Women In Temple Sculpture Terracotta Bengal Architecture
শিব পুজায় মগ্ন নারী (কেন্দুর , সিউরি)
Manasa Women in Bengal Terracotta Temple Architecture
মনসা মূর্তি (ইটন্ডা , তেহট্ট)
Women In Temple Sculpture Terracotta Bengal Architecture Sex Couple
মিথুন মূর্তি (সিউরি ,বাঁশবেরিয়া , কেন্দুর )

 

Women In Temple Sculpture Terracotta Bengal Architecture Mother Krishna
স্তন্যদায়িনী (সুরুল,তেহট্ট)
নৃত্যরত নারীমূর্তি , নদী পারাপার (বাঁশবেরিয়া)

 

 

Women in Bengal Terracotta Temple Architecture Sthapatya Magazine
টেরাকোটায় নারীমূর্তি (কেন্দুর , ইটন্ডা , সুরুল )

এছাড়াও দেখতে পারেন – http://www.chitrolekha.com/V2/n1/04_Saheb_Memsaheb_Bengal_Temple_terracotta.pdf

লিখেছে – অরুনাভ সান্যাল 

 

Subscribe to our newsletter
Sign up here to get the latest news, updates and special offers delivered directly to your inbox.
You can unsubscribe at any time

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

Leave A Reply

Your email address will not be published.

6 Comments
  1. Rajeswar Roy says

    Terracottar Murti Osadharon ebong narir jiboner bivinno dik Fute uthche… Osadharon o otuloniyo. Amr jante icche korche Egulo kon somoyer? Ami female sculptures niye kaj korchi… Early medieval Bengal er upor….

  2. Poushali Khan says

    Bah khub sundor

  3. খুবই সম্ভাবনাময় লেখা। বহুকৌণিকও বটে। দুখন্ড বস্ত্র পরিহিতাকে কখন থেকে মুড়ে ফেলা হল ঘোমটায়, শাড়িতে, কি কি ছিল তার সামাজিক কারণ এসবের আকর হিসেবে ব্যবহার করা যেতে পারে ভাস্কর্য নিদর্শনকে ! সামাজিক পরিবর্তনের আয়না হিসেবে ব্যবহার করা যেতে পারে ।
    পরের লেখাটুকুর জন্য অপেক্ষা থাকল। খুবই মূল্যবান অথচ প্রাঞ্জল পোস্ট।

  4. Amrita Mukherjee says

    Darun!

  5. jayatisblog says

    আমার কাছে সম্পূর্ণ নতুন একটা বিষয় । সুন্দর সাবলীল লেখা, পড়তে বেশ ভাল লাগছে ,অনেক কিছু জানতে পারছি।ধন্যবাদ।

    1. Arunava Sanyal says

      Thank you for your appreciation . 🙂

error: যোগাযোগ করুন - info.sthapatya@gmail.com